• মঙ্গলবার, ১১ অগাস্ট ২০২০, ০৩:৩২ অপরাহ্ন
  • বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी
নোটিশ :
প্রতিটি জেলায় দক্ষ ও অভিজ্ঞ সংবাদকর্মী নিয়োগ দেওয়া হবে বেতন-ভাতা আলোচনা সাপেক্ষ।আগ্রহীরা যোগাযোগ করুন ০১৮৬৫-১১৫৭৮৭ আমাদের ভুবনে আপনাকে স্বাগতম>> তথ্য নির্ভর সংবাদ পেতে সাথে থাকুন ধন্যবাদ।

২ বছরের মধ্যে ডিএনসিসির সব সুবিধা মিলবে অনলাইনে: আতিক

রিপোর্টার
আপডেট : মঙ্গলবার, ১০ ডিসেম্বর, ২০১৯

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র মো. আতিকুল ইসলাম বলেছেন, আগামী দু’বছরের মধ্যেই করপোরেশনের সব নাগরিক বাসায় বসে অনলাইন অ্যাপসের মাধ্যমে কর দেওয়ার পাশাপাশি অন্য সুবিধা ভোগ করতে পারবেন।

মঙ্গলবার (১০ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় ইঞ্জিনিয়ারস ইন্সটিটিউটের আইডিবি কাউন্সিল হলে ‘স্মার্ট সিটি ইনিশিয়েটিভ ইন বাংলাদেশ’ শীর্ষক আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখতে গিয়ে এ কথা বলেন তিনি।ইতোমধ্যে চালু হওয়া এ অ্যাপসের মাধ্যমে সাত শতাংশ লোক কর দিচ্ছেন বলে মেয়র আতিকুল ইসলাম।

মেয়র আতিকুল ইসলাম বলেন, ডিএনসিসির ‘নগর অ্যাপস’ নামের এ অ্যাপসের মাধ্যমে ময়লা আবর্জনা ফেলার স্থান, টয়লেটের অবস্থান, বাজারদর, বিভিন্ন এলাকার বাস সার্ভিস, বাসের টিকেট ও বাসের সময় জানা যাবে।তিনি বলেন, আমরা স্মার্ট সিটি তৈরির দিকে এগিয়ে যাচ্ছি। আমাদের বিভিন্ন ধরনের চিপস তৈরি করা হয়েছে। এ চিপস বাচ্চাদের স্কুল ব্যাগের সঙ্গে লাগানো থাকবে। এতে অভিভাবকরা বাচ্চাদের অবস্থান জানতে পারবেন। এছাড়া বৃদ্ধ ও প্রতিবন্ধীদের নিরাপত্তার জন্য মাদুলি তৈরি করা হয়েছে।মেয়র আরও বলেন, ডিএনসিসি অফিসে ৪২০০ স্কয়ার ফিটের ‘কমার্স সেন্টার’ চালু করতে কাজ করছে। সেখানে ডিজিটাল একটি ওয়াল থাকবে। এরমধ্যে নিরাপদ সড়ক, বাজার মনিটরিং, ওয়েস্ট ম্যানেজমেন্ট, পার্কিং, ট্রাফিক সিস্টেম, করব্যবস্থার বিভিন্ন রকমের কাজ অনলাইনের মধ্যে করা হবে।

তিনি বলেন, নাগরিকদের অভিযোগ ও প্রয়োজনীয় তথ্য জানার জন্য ডিএনসিসি কল সেন্টার চালু করেছে।সব নাগরিক ৩৩৩ নম্বরে কল করে এ কল সেন্টারে অভিযোগ জানাতে ও প্রয়োজনীয় তথ্য জানতে পারবেন।বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক কমিটির চেয়ারম্যান প্রফেসর মো. হোসেন মনসুরের সভাপতিত্বে সেমিনারে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সরকার  মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম।



ফেসবুকে আমরা