নারায়ণগঞ্জে গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার, অভিযুক্ত স্বামী পলাতক | Daily Cox News
  • শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ০৭:২২ পূর্বাহ্ন
  • বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

নারায়ণগঞ্জে গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার, অভিযুক্ত স্বামী পলাতক

ডেস্ক রিপোর্ট
আপডেট সময় : মঙ্গলবার, ২৫ আগস্ট, ২০২০
লাশ উদ্ধার

নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও উপজেলায় এক গৃহবধূর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। পারিবারিক কলহের জের ধরে রুবেল মিয়া (৩০) সাবেক স্ত্রী আঁখি আক্তারকে (২৬) ‘গলা কেটে’ হত্যা করে পালিয়েছে বলে ধারণা পুলিশের।

আজ মঙ্গলবার বিকালে উপজেলার বাড়ি মজলিশ এলাকা থেকে ওই মরদেহ উদ্ধার করা হয়। পরে ময়নাতদন্তের জন্য মরদেহ নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়।

নিহত আঁখি আক্তার বন্দর উপজেলার বাদুরী এলাকার নজরুল ইসলামের মেয়ে। তার চার বছরের একটি মেয়ে সন্তান আছে।

পলাতক সাবেক স্বামী রুবেল মিয়া সোনারগাঁও উপজেলার মুগারচর এলাকার মফিজুল ইসলামে ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শী নিপা আক্তার বলেন, ‘পূর্ব পরিচিত হওয়ায় দুপুরে রুবেল তার স্ত্রী আঁখিকে নিয়ে আমার বাড়িতে আসে। দুজন নিজেদের সমস্যা সমাধান করবে এজন্য ঘরে বসে কথা বলে। এসময় আমি ঘরের কাজে ব্যস্ত হয়ে যাই। প্রায় এক ঘণ্টা পর রুমে প্রবেশ করতেই রুবেল আমাকে ধাক্কা দিয়ে রুম থেকে বের হয়ে দৌড়ে পালিয়ে যায়। তখন রুমে গিয়ে দেখি আঁখির গলাকাটা মরদেহ পড়ে আছে। পরে রুবেলের বাবা মফিজুলকে নিয়ে থানায় গিয়ে পুলিশকে জানাই।’

সোনারগাঁও থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রফিকুল ইসলাম দ্য ডেইলি স্টারকে বলেন, ‘ছয় বছর আগে পারিবারিকভাবে আঁখি ও রুবেলের বিয়ে হয়। কিন্তু পারিবারিক কলহের জের ধরে গত তিন মাস আগে তাদের তালাক হয়। ধারণা করা হচ্ছে, ওই কলহের জের ধরে সাবেক স্বামী রুবেল ডেকে এনে আঁখিকে গলায় ও হাতে পায়ে ধারালো অস্ত্র দিয়ে জখম করে। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যায় আঁখি। ময়নাতদন্তের পর বিস্তারিত বলা যাবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘এখন পর্যন্ত কাউকে আটক করা হয়নি। এ বিষয়ে তদন্ত চলছে। মামলা প্রক্রিয়াধীন। পলাতক রুবেলকে গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত আছে


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেইসবুক পেইজ