শুক্রবার, ২২ জানুয়ারী ২০২১, ০৬:৩১ পূর্বাহ্ন

দুদকের মামলায় ওসি প্রদীপের জামিন নামঞ্জুর

নিজস্ব প্রতিবেদক
আপডেট রবিবার, ১০ জানুয়ারী, ২০২১
ওসি প্রদীপকে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছে তদন্ত কমিটি

অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান হত্যায় অভিযুক্ত টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশের বিরুদ্ধে দুদকের দায়ের করা অবৈধ সম্পদ অর্জনের মামলায় জামিন আবেদন নামঞ্জুর করেছেন আদালত।

রোববার (১০ জানুয়ারি) চট্টগ্রামের সিনিয়র স্পেশাল জজ ও মহানগর দায়রা জজ শেখ আশফাকুর রহমানের আদালত এ আদেশ দেন। এর আগে গত বুধবার আসামির পক্ষে তার আইনজীবী জামিনের আবেদন করেছিলেন।

শুনানির সময় বরখাস্ত ওসি প্রদীপ কুমার দাশকে আদালতে হাজির করা হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে দুদকের আইনজীবী মাহমুদুল হক বলেন, ‘অবৈধ সম্পদ অর্জনের মামলায় ওসি প্রদীপ কুমার দাশের পক্ষ থেকে জামিনের আবেদন করা হয়েছিল। কিন্তু বিষয়টি স্পর্শকাতর হওয়ায় আমরা শুনানিতে এর তীব্র বিরোধিতা করি। শুনানি শেষে আদালত জামিন নামঞ্জুর করেছেন। পাশাপাশি তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিতে ৮ মার্চ পর্যন্ত সময় নির্ধারণ করে দিয়েছেন।’

প্রসঙ্গত, দুদকের করা অবৈধ সম্পদ অর্জনের এই মামলাটিতে তদন্ত প্রতিবেদন জমা এ নিয়ে চতুর্থবারের মতো পেছাল।

টেকনাফের সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশ ও তার স্ত্রী চুমকি কারণের বিরুদ্ধে গত ২৩ আগস্ট দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয়-১-এ বাদী হয়ে মামলাটি করেন দুদকের সহকারী পরিচালক মো. রিয়াজ উদ্দীন। এ মামলায় ২৭ আগস্ট মহানগর সিনিয়র স্পেশাল দায়রা জজ শেখ আশফাকুর রহমানের আদালতে প্রদীপ কুমার দাশকে গ্রেফতার দেখানোর আবেদন জমা দেয়া হয়।

দুদকের এই মামলায় প্রদীপ কুমার দাশ ও চুমকি কারণের বিরুদ্ধে প্রায় ৪ কোটি টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগ করা হয়। এর মধ্যে ৩ কোটি ৯৫ লাখ ৫ হাজার ৬৩৫ টাকা ওসি প্রদীপ ঘুষ-দুর্নীতির মাধ্যমে অর্জন করেছেন বলে অভিযোগ এনেছে দুদক। এছাড়া ১৩ লাখ ১৩ হাজার ১৭৫ টাকা সম্পদের তথ্য বিবরণীতে গোপন করার অভিযোগ আনা হয়েছে চুমকির বিরুদ্ধে। প্রদীপ ঘুষ-দুর্নীতির মাধ্যমে সম্পদ অর্জন করে স্ত্রীর নামে হস্তান্তর ও স্থানান্তর করেছেন বলেও দুদকের অনুসন্ধান প্রতিবেদন এবং এজাহারে উল্লেখ করা হয়।


এ জাতীয় সংবাদ