শুক্রবার, ০৫ মার্চ ২০২১, ০৩:৫৬ পূর্বাহ্ন

মিয়ানমারে পুলিশ-বিক্ষোভকারী সংঘর্ষে সু চির ৩ সমর্থক গুলিবিদ্ধ

নিজস্ব প্রতিবেদক
আপডেট শুক্রবার, ১২ ফেব্রুয়ারী, ২০২১
মিয়ানমারে পুলিশ-বিক্ষোভকারী সংঘর্ষে সু চির ৩ সমর্থক গুলিবিদ্ধ

মিয়ানমারের মাওলামিন শহরে পুলিশ-বিক্ষোভকারী সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়েছেন অন্তত ৩ সু চি সমর্থক। প্রতিবাদ মিছিল অব্যাহত ইয়াঙ্গুন, নেপিদোসহ বিভিন্ন শহরে।

কারফিউ আর জান্তা সরকারের রক্ষচক্ষু উপেক্ষা করেই শুক্রবার প্রতিবাদ মিছিলে যোগ দেন মিয়ানমার গণতন্ত্রকামীরা। এক শহর থেকে অন্য শহরে ছড়িয়ে পড়ছে প্রতিবাদ।

মাওলামিন শহরে সংঘর্ষ বাধে পুলিশ-বিক্ষোভকারীর। রাবার বুলেটে আহত হন বেশ কজন।

এক হাতে পতাকা অন্য হাতে ফুল নিয়ে ইনলি লেকে গণতন্ত্র হরণের বিরুদ্ধে ছিলো ব্যাপক উপস্থিতি।

অভ্যুত্থান পরবর্তী মিয়ানমারে এখন প্রতিবাদের বড় মঞ্চ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম। অবশ্য, বিভ্রান্তিকর তথ্য ছড়ানোর দায়ে সামরিক বাহিনীর পোষ্ট মুছে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে ফেসবুক। আর সরকারি কর্মচারীরা কাজে না ফিরলে চড়া মূল্য দিতে হবে বলে হুঁশিয়ার করেছেন সেনাপ্রধান জেনারেল মিং অং লাইং।

জেনারেল মিং অং লাইং বলেন, ‘অনেক সরকারি কমকর্তা কর্মবিরতি শুরু করেছেন। অবিলম্বে তাদেরকে নিজ দায়িত্ব পালনের অনুরোধ করছি। এর ব্যাতিক্রম হলে কঠোর সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।’

৭৪তম ইউনিয়ন দিবসে সাজা মওকুফ করে মুক্তি দেয়া হয়েছে ২৩ হাজার বন্দিকে। মুক্তি পেয়েছেন ৫৫ বিদেশি নাগরিকও। মিয়ানমার ইস্যুতে চীনের ভূমিকায় ক্ষুব্ধ যুক্তরাষ্ট্র।

যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র নেড প্রাইস বলেন, মিয়ানমারে গণতন্ত্র পুনরুদ্ধারে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে চীনের। আশা করবো তারা দ্রুতই সেনা অভ্যুস্থানের নিন্দা জানাবে। সেনা সরকারের বিরুদ্ধে চীনের সাথে যৌথভাবে কাজ করতে আগ্রহী যুক্তরাষ্ট্র।

থাইল্যান্ড, জাপানের পর সু চিসহ বন্দিদের মুক্তির দাবিতে বিক্ষোভ হয়েছে ফিলিপাইনে।


এ জাতীয় সংবাদ