নিখোঁজের ৮২ দিন পর কলেজছাত্রীর কঙ্কাল উদ্ধার | Daily Cox News
  • বৃহস্পতিবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, ০৯:৫৯ পূর্বাহ্ন
  • বাংলা বাংলা English English हिन्दी हिन्दी

নিখোঁজের ৮২ দিন পর কলেজছাত্রীর কঙ্কাল উদ্ধার

মাহফুজ মামুন
আপডেট সময় : রবিবার, ২২ নভেম্বর, ২০২০
নিখোঁজের ৮২ দিন পর কলেজছাত্রীর কঙ্কাল উদ্ধার

কুষ্টিয়ার দৌলতপুর থেকে কলেজছাত্রী মিম খানম নিখোঁজের ৮২ দিন পর তার কঙ্কাল উদ্ধার করেছে চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা থানা পুলিশ।

রোববার (২২ নভেম্বর) দুপুরে নিহতের পোশাক ও ভ্যানিটি ব্যাগ থেকে তার স্বজনরা নিখোঁজ কলেজছাত্রী বলে শনাক্ত করেন। মাথার খুলি ও হাড়গুলো চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় এখনও পর্যন্ত কোনো মামলা হয়নি।
নিহত কলেজ ছাত্রী মিম খানম কুষ্টিয়া জেলার মিরপুর উপজেলার পিপুলবাড়িয়া গ্রামের মধু খানের মেয়ে ও আমলা সরকারি কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্রী।

দামুড়হুদা থানার ওসি আব্দুল খালেক জানান, শনিবার বিকেলে দামুড়হুদা উপজেলার উজিরপুর গ্রামের বাসিন্দারা একটি কাওমি মাদ্রাসার পেছনে মাথাভাঙ্গা নদীতে অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির মাথার খুলি ও হাড় দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে মাথার খুলি, হাড়, ভ্যানিটি ব্যাগ, বোরকা ও জামা উদ্ধার করে দামুড়হুদা থানায় নেয়। কঙ্কালের সাথে থাকা ব্যাগ থেকে একটি টিকার কার্ড পাওয়া যায়। সেই কার্ডের সূত্র ধরে পুলিশ মিরপুর থানা পুলিশকে জানায়। রোববার দুপুরে নিহতের মা-বাবা ও স্বজনরা দামুড়হুদা থানায় এসে ব্যাগ ও পোশাক দেখে তাদের নিখোঁজ মেয়ে বলে শনাক্ত করেন।
ওসি আরও বলেন, হত্যা রহস্য উদঘাটনে পুলিশ কাজ করছে। মামলা প্রক্রিয়াধীন।

নিহতের বাবা মধু খান বলেন, নিখোঁজের দিন নানা বাড়ি থেকে নিজ বাড়িতে ফিরছিল মিম। সে আর বাড়িতে ফিরে আসেনি। থানায় মেয়ের নিখোঁজের বিষয়টি জানাতে গেলে পুলিশ সাধারণ ডায়েরি নেইনি। মেয়ের বোরকা, পোশাক ও ভ্যানেটি ব্যাগ দেখে শনাক্ত করি। মেয়ে মারা যাওয়ার বিষয়টি জানতে তো পারলাম।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *


ফেইসবুক পেইজ